আইফোন ব্যবহার করলে চাকরি থাকবে না!

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

আইফোন থাকলে সাবধান! শখের মোবাইলের কারণে যে কোনো সময় খোয়া যেতে পারে চাকরি। এমন সিদ্ধান্ত চীনের কয়েকটি প্রতিষ্ঠানের। এমন কি আইফোনের বদলে সে দেশের পণ্য হুয়াওয়ের ফোন কিনতে তাড়া দেওয়া হচ্ছে কর্মীদের।

কিন্তু আইফোনের সঙ্গে কী শত্রুতা চীনের? কেনই বা এমন বাধা-নিষেধ-জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

এনডিটিভির খবরে বলা হয়, সম্প্রতি কানাডায় হুয়াওয়ের চিফ ফিনান্সিয়াল অফিসার মেং ওয়াঝউকে গ্রেপ্তার করা হয়। তারপরই এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় চীনা প্রতিষ্ঠানগুলোর পক্ষ থেকে।

চীনের অনেকের কাছে হুয়াওয়ের এই কর্মকর্তার গ্রেপ্তার শুধু যুক্তরাষ্ট্র-চীনের বাণিজ্যিক টানাপোড়েনের মধ্যেই সীমাবদ্ধ নেই, বরং জাতীয় আত্মসম্মানের বিষয় হয়েও দাঁড়িয়েছে। এ কারণেই অনেক প্রতিষ্ঠানে আইফোনে নিষেধাজ্ঞার পাশাপাশি হুয়াওয়ের ফোন কিনতে ১০ থেকে ২০ শতাংশ আর্থিক সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।

সংবাদমাধ্যমটির প্রতিবেদনে আরও উল্লেখ করা হয়, সাংহাই ইউলুওকি নামের একটি ইলেকট্রনিকস নির্মাতা প্রতিষ্ঠান কর্মীদের হুয়াওয়ের দুটি ফোন কেনাতেও আর্থিক সহায়তা করছে। সেনঝেন ইদাহেং নামের আরেকটি প্রযুক্তিভিত্তিক প্রতিষ্ঠান জেডটিই ও হুয়াওয়ে ফোন কেনায় ১৮ শতাংশ পর্যন্ত অর্থ দিয়ে সাহায্য করছে।

এদিকে চীনের হেনান প্রদেশে করা হয়েছে আরও আজব ঘোষণা। সেখানে বলা হয়েছে হুয়াওয়ে ফোন ক্রেতাদের ফোনের ক্রয়মূল্যের ৩০ শতাংশ অর্থের সমপরিমাণ অ্যালকোহল বিনামূল্যে দেওয়া হবে।

তবে শুধু আইফোনের ওপরই নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেনি প্রতিষ্ঠানগুলো। মেংপাই টেকনোলজি নামের একটি প্রতিষ্ঠান ফোনের পাশাপাশি মার্কিন গাড়িসহ অন্য পণ্য ব্যাবহারে কড়া নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে।

হুয়াওয়ে একটি ব্যাক্তিমালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান হলেও চীন সরকারের সঙ্গে সেটির বেশ দহরম-মহরম রয়েছে। প্রতিষ্ঠানটিকে বিভিন্নভাবে সহায়তা করে দেশটির সরকার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *