আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে ফণীর ‘আঘাত’

প্রধান সংবাদ বাংলাদেশ

ধেয়ে আসছে প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ফণী’। উদ্বিগ্ন হয়ে বহু মানুষ আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে ঢু মারছেন। উদ্দেশ্য একটাই, সর্বশেষ তথ্য পাওয়া। কিন্তু দিনভর প্রবেশ করা যায়নি ওই ওয়েবসাইটে। যোগাযোগ করতে পারছেন না হটলাইনেও।
বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে ‘ভিজিটরদের’ অতিরিক্ত চাপে আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইটে প্রবেশ করা যাচ্ছে না। এ কারণে হালনাগাদ তথ্য পাওয়া যাচ্ছে না।

আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টা ৩৬ মিনিটে আবহাওয়ার অধিদপ্তরের ফেসবুক পেজে হতাশা ব্যক্ত করে একজন লিখেছেন, ‘ওয়েব সাইট, হটলাইন সব মরছে,,,নিউজ দেখবো কি দিয়া (রাগের ইমো)’
এই ব্যাপারে জানতে চাইলে শনিবার রাত ৮টার দিকে আবহাওয়া অধিদপ্তরের পরিচালক মো. সামছুদ্দিন আহমেদ অনলাইনকে বলেন, ‘এক সঙ্গে দুই লাখ মানুষ হিট করেছে। তারপর থেকে ওয়েবসাইট হ্যাং হয়ে গিয়েছে। আমি একটু আগেও খোঁজ নিলাম আইটিতে। তারা বললো, আরো ঘণ্টা চারেক লাগবে ঠিক হতে।’
আবহাওয়া অধিদপ্তরের হটলাইনেও মানুষ তথ্য পাচ্ছে না কেন-এমন প্রশ্নে পরিচালক বলেন, ‘হটলাইনে কেন পাচ্ছে না এটা বিটিসিএলের কাছে জানতে চান। আমরাও উপকৃত হতাম।’
ওয়েবসাইট বন্ধ। হটলাইনেও যোগাযোগ করা যাচ্ছে না। অথচ দেশে আবহাওয়ার তথ্য জানার একমাত্র সরকারি সংস্থা আবহাওয়া অধিদপ্তর। সাধারণ মানুষের পাশাপাশি গণমাধ্যমকর্মীরাও এই ওয়েবসাইট (www.bmd.gov.bd) থেকে তথ্য নিয়ে থাকেন। কয়েক দিন ধরে ঘূর্ণিঝড় ‌‘ফণী’ সম্পর্কে সর্বশেষ খবর জানতে সবার চোখ ছিল এই ওয়েবসাইটে।
বৃহস্পতিবার সকালে আবহাওয়া অধিদপ্তর এক বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত অতিপ্রবল ঘূর্ণিঝড় ফণী শুক্রবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশে আঘাত হানতে পারে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, শুক্রবার সকাল থেকে ফণী খুলনা ও তৎসংলগ্ন জেলার পূর্বাঞ্চলে প্রভাব ফেলতে পারে। সন্ধ্যায় ঘূর্ণিঝড়টি দক্ষিণ-পশ্চিমের জেলাগুলোতে আঘাত হানতে পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *